ডোমেইন (Domain) এবং হোস্টিং (Hosing) কি ? ও কি কি কাজে প্রয়োজন হয় এবং কোথায় পাওয়া যায়।

  • Next Post
  • Previous Post

ডোমেইন (Domain) এবং হোস্টিং (Hosing) কি ? ও কি কি কাজে প্রয়োজন হয় এবং কোথায় পাওয়া যায়।

১) ডোমেইন (Domain) কি ?

ডোমেইনকে এক কথায় বলতে গেলে বলতে হয় একটি নাম। যে নামটি ব্যবহার করে বা সার্চ করে আপনাকে বা আপনার কোম্পানীকে ইন্টারনেট সার্চ ইঞ্জিন ব্যবহার করে খুঁজে নিবে। ডিজিটাল বা বিশ্বায়নের এই যুগে যুগের সাথে তাল মিলিয়ে চলতে হলে আমাদেরকে নিজেদের প্রয়োজনে বা ব্যবসায়িক প্রয়োজনে একটি বা একাধিক ওয়েরসাইট রেডি করতে হয় এবং এইসব সাইটের একটি নাম দিতে হয়। যেমন www.yourname.com, www.facebook.com, www.google.com ইত্যাদি ইত্যাদি। এই ধরনের নামটিকে বলা হয় ডোমেইন। যাহা বাৎসরিক একটা টাকার বিনিময়ে কিনতে হয়। যেমন প্রতি বছর একটি ডোমেইন এর জন্য আটশত থেকে এক হাজার টাকা পর্যন্ত দিতে হয়। আপনি ধরুন আপনার কোম্পানীর নাম দিয়ে একটি ডোমেইন ক্রয় করেছেন, আপনার এই নামটির পুরো স্বত্ব আপনারই। আপনি যতিদিন উক্ত নামটি যথাযথ ভাবে পরিচালিত করবেন ততদিন আপনার ক্রয়কৃত নামটি আর কেউ ব্যবহার করতে পারিবেনা। এই ডোমেইন বিভিন্ন ধরনের এক্সটেনশন হয়ে থাকে যেমন .com / .net / .org / .biz ইত্যাদি ইত্যাদি । এই ধরনের এক্সটেনশনের মধ্যে .com সবচেয়ে জনপ্রিয়।

আপনি/আপনারা যদি ডোমেইন ও হোস্টিং কিনতে চান বা আগ্রহী হন তাহলে আমার নীচের এই লিংটিতে ক্লিক করে আপনার প্রয়োজনীয় তথ্যাদি পুরন করে কিনে নিতে পারেন। আপনি চাইলে বিকাশের মাধ্যমে বা ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে খুব সহজে টাকা পরিশোধ করতে পারেন।

(ডোমেইন ও হোস্টিং ক্রয়ের জন্য ক্লিক করুন) 

(২) হোস্টিং (Hosting) কি ?

আমাদের মধ্যে অনেকেই ডোমেইন কি তা জানেন কিন্তু হোস্টিং কি তা জানেন না।

আপনি একটি ডোমেইন কিনলেন তাহলে আপনি আপনার ওয়েবসাইটের একটি নাম কিনলেন। আপনার ওয়েবসাইট কে এমন একটা পিসি তে রাখতে হবে যেটা ২৪ ঘন্টা এবং বছরে ৩৬৫ দিন অন থাকবে। সবসময় চালু থাকে এমন একটা পিসিতে আপনার ওয়েবসাইট রাখার সুবিধা দিয়ে থাকে হোস্টিং কোম্পানীগুলো।

হোস্টিং হচ্ছে একটি জায়গা। এখানে জায়গা বলতে বুঝানো হয়েছে নির্দিষ্ট একটি কম্টিউটার থেকে Space অথ্যাৎ আপনার তৈরীকৃত ওয়েবসাইটিকে আপনি যেখানে রাখবেন। এই ধরনের কম্পিউটার বা পিসি ২৪ঘন্টা এবং বছরে 365দিন অন বা চালু থাকে। এই ধরনরে জায়গা বিভিন্ন ধরনের ডোমেইন ও হোস্টিং কোম্পানীর কাছে থেকে ক্রয় করতে হয়।

হোস্টিং কোম্পানীগুলো মাসিক বা বাৎসরিক টাকার বিনিময়ে এই ধরনের সার্ভিস দিয়ে থাকে। বিভিন্ন কোম্পানী বিভিন্ন ধরনের মূল্যে হোস্টিং সেবা দিয়ে থাকে।  বাংলাদেশে আপনাকে হোস্টিং নিতে হলে বিভিন্ন কোম্পানীকে বিভিন্ন ধরনের মূল্য পরিশোধ করতে হবে। তাদের পিসি বা কম্পিউটার থেকে আপনার চাহিদাকৃত পরিমান জায়গা আপনাকে কিনে ব্যবহার করতে হবে। আর আপনি আপনার ওয়েবসাইটের জন্য যে জায়গাটা কিনবেন সেইট হলো হোস্টিং। আপনি চাইলে আপনার বাসার পিসিতেও আপনার ওয়েবসাইট রাখতে পারেন কিন্তু আপনার বাসার পিসি কি ২৪ ঘন্টা ৩৬৫ দিন চালু থাকে? আপনি আপনার পিসিতে ওয়েবসাইট রাখলে আপনার কম্পিউটার   বন্ধ বা ইন্টারনেট সংযোগ না থকলে আপনার ভিজিটর আপনার ওয়েবসাইট দেখতে পারবে না।আপনি যে পিসিতে আপনার ওয়েবসাইট হোস্ট করবেন সেটা সবসময় চালু থকতে হবে। আনার সাইট হোস্ট করা পিসি চালু থাকলেই আপনার ভিজিটর আপনার ওয়েবসাইট দেখতে পাবেন।

 আমাদের দেশের হোস্টিং কোম্পানী সহ বিশ্বের যে সকল হোস্টিং  কোম্পানী আছে, তারা বিভিন্ন ধরনের হোস্টিং বিক্রি করে। যেমন: শেয়ার হোস্টিং, ভিপিএস, ডেডিকেটেড হোস্টিং ইত্যাদি। আপনার প্রয়োজন অনুযায়ী আপনাকে হোস্টিং স্পেস কিনতে হবে।

অনেকেই মনে করেন ডোমেইন ও হোস্টিং মনে হয় একই অথবা একটা কিনলে দুইটাই  পাওয়া যায়। আসলে ডোমেইন এক জিনিস আর হোস্টিং আরেক জিনিস। দুইটাই আপনাকে কোম্পানীর কাছ থেকে কিনতে হবে অলাদা আলাদা টাকা দিয়ে। তবে সাধারনত যারা হোস্টিং বিক্রি করে তারা ডোমেইন ও বিক্রি করে। আপনি চাইলে একই প্রোভাইডার বা  কোম্পানীর কাছ থেকে ২ টাই কিনতে পারেন। আবার চাইলে আলাদা কোম্পানীর কাছ থেকেও কিনতে পারেন। তবে আমার মতে আপনি ডোমেইন এবং হোস্টিং একই কোম্পানীর কাছ থেকে কিনেন তাতে আপনার মেইনটেনেন্সে সুবিধা হবে এবং দুইটা দুই কোম্পানীর কাছ থেকে কিনলে কিছু সমস্যা আছে যেমন আপনাকে ডোমেইন এবং হোস্টিং কানেক্ট বা সংযোগ করাটা জানতে হবে।

আশা করছি আপনাদের বিষয়টি কাজে আসবে। যদি এই বিষয়ে কোন কিছু জানার থাকে তাহলে নীচে কমেন্টস্ বক্স এ আমাকে লিখতে পারেন। আমি চেষ্টা করবো সমাধান দিতে।

 

 

১) ডোমেইন (Domain) কি ?

ডোমেইনকে এক কথায় বলতে গেলে বলতে হয় একটি নাম। যে নামটি ব্যবহার করে বা সার্চ করে আপনাকে বা আপনার কোম্পানীকে ইন্টারনেট সার্চ ইঞ্জিন ব্যবহার করে খুঁজে নিবে। ডিজিটাল বা বিশ্বায়নের এই যুগে যুগের সাথে তাল মিলিয়ে চলতে হলে আমাদেরকে নিজেদের প্রয়োজনে বা ব্যবসায়িক প্রয়োজনে একটি বা একাধিক ওয়েরসাইট রেডি করতে হয় এবং এইসব সাইটের একটি নাম দিতে হয়। যেমন www.yourname.com, www.facebook.com, www.google.com ইত্যাদি ইত্যাদি। এই ধরনের নামটিকে বলা হয় ডোমেইন। যাহা বাৎসরিক একটা টাকার বিনিময়ে কিনতে হয়। যেমন প্রতি বছর একটি ডোমেইন এর জন্য আটশত থেকে এক হাজার টাকা পর্যন্ত দিতে হয়। আপনি ধরুন আপনার কোম্পানীর নাম দিয়ে একটি ডোমেইন ক্রয় করেছেন, আপনার এই নামটির পুরো স্বত্ব আপনারই। আপনি যতিদিন উক্ত নামটি যথাযথ ভাবে পরিচালিত করবেন ততদিন আপনার ক্রয়কৃত নামটি আর কেউ ব্যবহার করতে পারিবেনা। এই ডোমেইন বিভিন্ন ধরনের এক্সটেনশন হয়ে থাকে যেমন .com / .net / .org / .biz ইত্যাদি ইত্যাদি । এই ধরনের এক্সটেনশনের মধ্যে .com সবচেয়ে জনপ্রিয়।

আপনি/আপনারা যদি ডোমেইন ও হোস্টিং কিনতে চান বা আগ্রহী হন তাহলে আমার নীচের এই লিংটিতে ক্লিক করে আপনার প্রয়োজনীয় তথ্যাদি পুরন করে কিনে নিতে পারেন। আপনি চাইলে বিকাশের মাধ্যমে বা ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে খুব সহজে টাকা পরিশোধ করতে পারেন।

(ডোমেইন ও হোস্টিং ক্রয়ের জন্য ক্লিক করুন) 

(২) হোস্টিং (Hosting) কি ?

আমাদের মধ্যে অনেকেই ডোমেইন কি তা জানেন কিন্তু হোস্টিং কি তা জানেন না।

আপনি একটি ডোমেইন কিনলেন তাহলে আপনি আপনার ওয়েবসাইটের একটি নাম কিনলেন। আপনার ওয়েবসাইট কে এমন একটা পিসি তে রাখতে হবে যেটা ২৪ ঘন্টা এবং বছরে ৩৬৫ দিন অন থাকবে। সবসময় চালু থাকে এমন একটা পিসিতে আপনার ওয়েবসাইট রাখার সুবিধা দিয়ে থাকে হোস্টিং কোম্পানীগুলো।

হোস্টিং হচ্ছে একটি জায়গা। এখানে জায়গা বলতে বুঝানো হয়েছে নির্দিষ্ট একটি কম্টিউটার থেকে Space অথ্যাৎ আপনার তৈরীকৃত ওয়েবসাইটিকে আপনি যেখানে রাখবেন। এই ধরনের কম্পিউটার বা পিসি ২৪ঘন্টা এবং বছরে 365দিন অন বা চালু থাকে। এই ধরনরে জায়গা বিভিন্ন ধরনের ডোমেইন ও হোস্টিং কোম্পানীর কাছে থেকে ক্রয় করতে হয়।

হোস্টিং কোম্পানীগুলো মাসিক বা বাৎসরিক টাকার বিনিময়ে এই ধরনের সার্ভিস দিয়ে থাকে। বিভিন্ন কোম্পানী বিভিন্ন ধরনের মূল্যে হোস্টিং সেবা দিয়ে থাকে।  বাংলাদেশে আপনাকে হোস্টিং নিতে হলে বিভিন্ন কোম্পানীকে বিভিন্ন ধরনের মূল্য পরিশোধ করতে হবে। তাদের পিসি বা কম্পিউটার থেকে আপনার চাহিদাকৃত পরিমান জায়গা আপনাকে কিনে ব্যবহার করতে হবে। আর আপনি আপনার ওয়েবসাইটের জন্য যে জায়গাটা কিনবেন সেইট হলো হোস্টিং। আপনি চাইলে আপনার বাসার পিসিতেও আপনার ওয়েবসাইট রাখতে পারেন কিন্তু আপনার বাসার পিসি কি ২৪ ঘন্টা ৩৬৫ দিন চালু থাকে? আপনি আপনার পিসিতে ওয়েবসাইট রাখলে আপনার কম্পিউটার   বন্ধ বা ইন্টারনেট সংযোগ না থকলে আপনার ভিজিটর আপনার ওয়েবসাইট দেখতে পারবে না।আপনি যে পিসিতে আপনার ওয়েবসাইট হোস্ট করবেন সেটা সবসময় চালু থকতে হবে। আনার সাইট হোস্ট করা পিসি চালু থাকলেই আপনার ভিজিটর আপনার ওয়েবসাইট দেখতে পাবেন।

 আমাদের দেশের হোস্টিং কোম্পানী সহ বিশ্বের যে সকল হোস্টিং  কোম্পানী আছে, তারা বিভিন্ন ধরনের হোস্টিং বিক্রি করে। যেমন: শেয়ার হোস্টিং, ভিপিএস, ডেডিকেটেড হোস্টিং ইত্যাদি। আপনার প্রয়োজন অনুযায়ী আপনাকে হোস্টিং স্পেস কিনতে হবে।

অনেকেই মনে করেন ডোমেইন ও হোস্টিং মনে হয় একই অথবা একটা কিনলে দুইটাই  পাওয়া যায়। আসলে ডোমেইন এক জিনিস আর হোস্টিং আরেক জিনিস। দুইটাই আপনাকে কোম্পানীর কাছ থেকে কিনতে হবে অলাদা আলাদা টাকা দিয়ে। তবে সাধারনত যারা হোস্টিং বিক্রি করে তারা ডোমেইন ও বিক্রি করে। আপনি চাইলে একই প্রোভাইডার বা  কোম্পানীর কাছ থেকে ২ টাই কিনতে পারেন। আবার চাইলে আলাদা কোম্পানীর কাছ থেকেও কিনতে পারেন। তবে আমার মতে আপনি ডোমেইন এবং হোস্টিং একই কোম্পানীর কাছ থেকে কিনেন তাতে আপনার মেইনটেনেন্সে সুবিধা হবে এবং দুইটা দুই কোম্পানীর কাছ থেকে কিনলে কিছু সমস্যা আছে যেমন আপনাকে ডোমেইন এবং হোস্টিং কানেক্ট বা সংযোগ করাটা জানতে হবে।

আশা করছি আপনাদের বিষয়টি কাজে আসবে। যদি এই বিষয়ে কোন কিছু জানার থাকে তাহলে নীচে কমেন্টস্ বক্স এ আমাকে লিখতে পারেন। আমি চেষ্টা করবো সমাধান দিতে।

/ Blog

Share the Post

About the Author

Comments

No comment yet.

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

  • Next Post
  • Previous Post